৩ নভেম্বর জেল হত্যার পূর্বাপর

বই > প্রসঙ্গ: বাংলাদেশ > স্বাধীনতা পরবর্তী বাংলাদেশ
3rd November Jail Hottar Purpopar (৩ নভেম্বর জেল হত্যার পূর্বাপর)
ফোনে অর্ডার দিতে কল করুন 01700 769631

৩ নভেম্বর জেল হত্যার পূর্বাপর
তাজউদ্দীন আহমদের কন্যার লেখা এই বইটিতে পঁচাত্তরের ৩ নভেম্বর জেলখানায় তাঁর পিতাসহ জাতীয় চার নেতার হত্যার পূর্বাপর ঘটনা প্রত্যক্ষদর্শীর বয়ানে তুলে ধরা হয়েছে ।

প্রকাশনী:
৳300.00
৳225.00
25 % ছাড়

নানাবিধ কারণে এদেশে ১৯৭৫ সাল কলংকিত হয়ে আছে, ১৫ ই আগস্ট মুজিব হত্যা এবং ৩ নভেম্বরের জাতীয় চার নেতার কারাগারে মর্মান্তিক হত্যকান্ড এর অন্যতম প্রধান কারণ। ১৯৭৫ সালের ৩ নভেম্বর তৎকালীন রাষ্ট্রপতি মোশতাক আহমেদ এর নির্দেশে মুক্তিযুদ্ধের নেতৃত্বদানকারী জাতীয় চার নেতা সৈয়দ নজরুল ইসলাম, তাজউদ্দিন আহমদ, এম. মনসুর আলী এবং এ. এইচ. এম. কামরুজ্জামানকে ঢাকা কেন্দ্রীয় কারাগারে নির্মমভাবে হত্যা করা হয়। এরপর পেড়িয়ে গেছে কত বছর। চর্চা ও প্রচারেরে বিমুখিতার কারণে ইতিহাসের সেই নৃশংস ঘটনা অনেকেই আজ ভুলেও গেছে। তবে সেই অনেকের ভীড়ে ভুলতে পারেননি শহীদ পরিবারের আত্নীয় স্বজন ও ঘনিষ্ঠজনেরা। তেমনই একজন হলেন তাজউদ্দিন তনয়া শারমিন আহমদ। ১৯৮৭ সালে যুক্তরাষ্ট্র থেকে বাংলাদেশে এসে তিনি লক্ষ্য করেন যে জেল হত্যাকান্ডটি সংঘটিত হওয়ার প্রায় বারো বছর পেড়িয়ে গেলেও এর সম্পর্কে কোন তথ্য, উপাত্ত এবং প্রমাণ যোগাড় করা হয়নি। জেল হত্যাকান্ডের স্বাক্ষী ব্যক্তিবর্গ এবং এই হত্যাকান্ডের তদন্তের সাথে জড়িত ব্যক্তিবর্গের সাক্ষাৎকার, ইতিহাসের উপাদান হিসেবে যার মূল্য অনেক তাও সংগ্রহ করে জাতিকে জানাবার জন্য কোন উদ্যোগ নেয় হয়নি। সেই সময় থেকেই সম্পুর্ন নিজ উদ্যোগে তা সংগ্রহ করে ২০১৪ সালে শারমিন আহমদ প্রকাশ করেন তার বই “ ৩ নভেম্বর : জেল হত্যার পূর্বাপর “।

সঠিক মূল্য

সকল পণ্য তুলনামূলকভাবে বাজারের সমমূল্যে বা এর চেয়ে কম মূল্যে বিক্রয় করা হয়

ডেলিভারী

বাংলাদেশের যে-কোন প্রান্তে ২-৫ দিনের মধ্যে পণ্য পৌঁছে দেয়া হয়

নিরাপদ পেমেন্ট

বাংলাদেশের সবচেয়ে জনপ্রিয় ও নিরাপদ পেমেন্ট পদ্ধতি মাধ্যমে পেমেন্টের সুযোগ

২৪/৭ কাস্টমার কেয়ার

সার্বক্ষণিক কেনাকাটার জন্য সার্বক্ষণিক সহায়তা
পণ্যটি সফলভাবে কার্টে যুক্ত হয়েছে     কার্ট দেখুন